‘দাবি মোদের একটাই, করিমগঞ্জ-তাড়াইলে নৌকা চাই’

‘দাবি মোদের একটাই, করিমগঞ্জ-তাড়াইলে নৌকা চাই’
Spread the love

বঙ্গবন্ধুর স্বদেশ প্রত্যাবর্তন দিবসে করিমগঞ্জ উপজেলা আওয়ামীলীগের অঙ্গিকার : দাবি মোদের একটাই, করিমগঞ্জ-তাড়াইলে নৌকা চাই

 

মো. আব্দুল জলিল মিয়া, করিমগঞ্জ, কিশোরগঞ্জ।

 

১০ জানুয়ারি করিমগঞ্জে বিপুল উৎসাহ উদ্দীপনার মধ্যদিয়ে জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবর রহমানের স্বদেশ প্রত্যাবর্তন দিবস পালিত হয়েছে। বর্ষীয়ান আওয়ামীলীগ নেতা ও মহান মুক্তিযুদ্ধের সংগঠক করিমগঞ্জ উপজেলা আওয়ামী লীগের সাবেক সভাপতি আবুল হাশেম চৌধুরীর আহবানে দিবসটি পালন করা হয়। দিবসটি ঘিরে ব্যাপক প্রস্তুতি নেয় উপজেলা আওয়ামীলীগসহ অঙ্গ সংগঠনের সকল নেতাকর্মীবৃন্দ। দিবসটি সফল উদযাপনে নানা কর্মসূচি পালন করা হয়।

 

কর্মসূচি অনুযায়ী বেলা ২ টায় করিমগঞ্জ পাইলট মডেল উচ্চ বিদ্যালয়ের মাঠে শুরু হয় গণজমায়েত। গণজমায়েতে উপজেলার পৌরসভাসহ সকল ইউনিয়ন আওয়ামীলীগের নেতা কর্মীবৃন্দ উপস্থিত হয়। অঙ্গ সংগঠনের আলাদা আলাদা ব্যানার-ফেস্টুন, কর্মীদের বাহারি সাজ ও নানা রকম বাদ্যযন্ত্রে দিবসটি উৎসব মূখর হয়ে উঠে। গণজমায়েত শেষে জাতীয় পতাকা উত্তোলনের মধ্যদিয়ে জনাব আবুল হাশেম চৌধুরী দিবসটির আনুষ্ঠানিক সূচনা করেন। পরে শুরু হয় নানা রকম বাদ্য বাজিয়ে বর্ণাঢ্য শুভাযাত্রা। শুভাযাত্রাটি করিমগঞ্জ পাইলট মডেল উচ্চ বিদ্যালয় থেকে শুরু করে শহরের প্রধান রাস্তা দিয়ে নয়াকান্দির মোড়, আনন্দবাজার ও বাস্ট্যান্ড হয়ে করিমগঞ্জ পাইলট মডেল উচ্চ বিদ্যালয় মাঠস্থ সমাবেশে যোগ দেয়। শুভাযাত্রা শেষে স্বাধীনতা সংগ্রামের মহানায়ক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবর রহমানের স্বদেশ প্রত্যাবর্তন ও বঙ্গবন্ধুর জীবনাদর্শ শীর্ষক আলোচনা শুরু হয়।

আলোচনা সভায় বক্তব্য রাখেন-সাবেক সাংসদ ড. মিজানুল হক, কিশোরগঞ্জ-৩ সংসদীয় আসনে আওয়ামীলীগের মনোনয়ন প্রত্যাশী, কিশোরগঞ্জ জেলা আওয়ামী আইনজীবী পরিষদের সদস্য এ্যাডভোকেট মোজাম্মেল হক মাখন, মনোনয়ন প্রত্যাশী বিশিষ্ট ব্যবসায়ী আলহাজ্ব এরশাদ উদ্দিন, আওয়ামীলীগ নেতা কামরুল ইসলাম চৌধুরী মামুন প্রমূখ।

 

কিশোরগঞ্জ-৩ আসনের সাবেক সাংসদ ড. মিজানুল হক বলেন, তৎকালীন বিএনপি- জামাত জোটের দুঃশাসনের বিরুদ্ধে প্রতিবাদ করতে গিয়ে কাফনের কাপড় পড়েছিলাম।প্রয়োজনে আসন্ন নির্বাচনে করিমগঞ্জ-তাড়াইল আসনে নৌকা প্রতীকসহ দলীয় প্রার্থী মনোনয়নের দাবিতে আবারো কাফনের কাপড় পড়ে আমরণ অনশন করবো। তবুও বঙ্গবন্ধুর নৌকা চাই, শেখ হাসিনার নৌকা চাই।

 

করিমগঞ্জ-তাড়াইল সংসদীয় আসনে আওয়ামীলীগের দলীয় মনোনয়ন প্রত্যাশী এ্যাডভোকেট মোজাম্মেল হক মাখন বলেল, আমাদের নেত্রী যাকে যোগ্য মনে করবেন তাকেই মনোনয়ন দেবেন। কিন্তু আমাদের দাবি সেই প্রার্থী যেন হয় মুজিব আদর্শের নৌকা প্রতীকসহ দলীয় প্রার্থী।

 

এছাড়াও উপজেলার পৌরসভাসহ সকল ইউনিয়নের আওয়ামীলীগ, যুবলীগ, ছাত্রলীগ, স্বেচ্ছাসেবকলীগসহ অন্যান্য অঙ্গ সংগঠনের সভাপতি/সম্পাদকসহ অন্যান্য সম্পাদক বৃন্দ। আলোচনা সভায় কামরুল ইসলাম চৌধুরী মামুন বলেন- স্বদেশ প্রত্যাবর্তন দিবস উদযাপনের এই আনন্দ সমাবেশের মধ্যদিয়ে করিমগঞ্জ উপজেলা আওয়ামীলীগ ও অঙ্গ সংগঠনের সকল নেতা কর্মী এক হয়েছে। বিগত সময় গুলোতে অন্তর্কুন্দলের সূযোগ নিয়ে করিমগঞ্জ- তাড়াইলের আওয়ামী রাজনীতি ধ্বংসের যে চক্রান্ত করা হয়েছিল, আজ থেকে তা বন্ধ । আজকে এ সমাবেশের মাধ্যমে কেন্দ্রীয় নেতৃবৃন্দ ও জননেত্রী শেখ হাসিনার কাছে দাবি একটাই – আগামী জাতীয় সংসদ নির্বাচনে নৌকা প্রতীকসহ দলীয় প্রার্থী চাই।

 

করিমগঞ্জ-তাড়াইলের আওয়ামী রাজনীতি ধ্বংস করার চক্রান্তের বিরুদ্ধে সকল নেতাকর্মীকে ঐক্যবদ্ধ থাকার আহবান জানিয়ে জননেতা আবুল হাশেম চৌধুরী বলেন, আমরা মুজিব আদর্শে শেখ হাসিনার নেতৃত্বে বাংলাদেশ আওয়ামীলীগের রাজনীতি করি। বিগত সময়ে ক্ষমতায় টিকে থাকার লোভে করিমগঞ্জ আওয়ামীলীগকে নেতৃত্বশূন্য করার যে অশুভ চক্রান্ত হয়েছে তা আজ সবার কাছে স্পষ্ট। আমরা ধন্য, আজকের এই মাঠে মহান নেতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবর রহমানকে পেয়েছি, শহিদ সৈয়দ নজরুল ইসলামকে পদধূলি পড়েছে, মহামান্য রাষ্ট্রপতি আব্দুল হামিদ সাহেবও এসেছেন। এই ঐতিহাসিক মাঠ থেকে করিমগঞ্জ উপজেলা আওয়ামীলীগের পক্ষে জননেত্রী শেখ হাসিনা ও নেতৃবৃন্দের কাছে আমাদের দাবি- আসন্ন নির্বাচনে করিমগঞ্জ-তাড়াইল আসনে বাংলাদেশ আওয়ামীলীগের নৌকা প্রতীকসহ দলীয় প্রার্থী চাই।

Share this...
Share on FacebookPrint this pageShare on Google+Tweet about this on TwitterShare on LinkedIn



Skip to toolbar